নাঙ্গলকোটে এক যুবেকের মৃত্যু বিষ মিশিয়ে হত্যার অভিযোগ

কুমিল্লা ডেক্স।।কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে শ্বশুড় বাড়িতে বেড়াতে এসে শরবত খেয়ে বিষক্রিয়ায় আক্রান্ত এক যুবক চিকিসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। তার নাম হুমায়ূন কবির (৩৫)। কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তিনদিন চিকিসার পর সোমবার রাতে মারা যান হুমায়ূন।

জানা যায়, নাঙ্গলকোট উপজেলার দঃমাহিনী গ্রামের হুমায়ুন কবির গত ৭ মাস পূর্বে লাকসাম উপজেলার আমদুয়ার গ্রামের মফিজুর রহমানের মেয়ে মাকসুদা আক্তার মেরীকে বিয়ে করে। গত ২২ জুলাই শনিবার মেরী স্বামীর বাড়ী থেকে তার পিতার বাড়ীতে বেড়াতে আসে। গত ২৮জুলাই শুক্রবার সকালে মাকুসদা আক্তার মেরীর পিতা মফিজুর রহমান জামাতা হুমায়ুন কবিরকে টেলিফোন করে মেরীকে নেওয়ার জন্য শ্বশুর বাড়ীতে আসতে বলেন। ওই দিন বিকেলে হুমায়ুন কবির শ্বশুর বাড়িতে বেড়াতে গেলে শ্বশুর বাড়ির লোকজন তাকে শরবত পান করতে দেন। হুমায়ুন কবির শরবত পান করার পর অসুস্থ হয়ে পড়েন।
পরে হুমায়ুন কবিরের চাচাতো ভায়রা উপজেলার মক্রবপুর ইউপির তুলাগাঁও গ্রামের শফিক তাকে নাঙ্গলকোট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। তার অবস্থা আশংকাজনক হলে তার ভাই জসিম উদ্দিন তাকে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন।
এসময় হুমায়ুন কবির তার ভাই জসিম উদ্দিনকে জানান, তাকে শ্বশুর বাড়ির লোকজন শরবতের সাথে বিষ খাইয়ে দিয়েছে। হুমায়ুন কবির কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিসাধীন অবস্থায় গত সোমবার রাত সাড়ে ৮টায় মারা যান। গতকাল মঙ্গলবার কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ময়নাতদন্তের পর তার লাশ বাড়ি নিয়ে আসা হয়। তার পরিবারের শোকের মাতম চলছে। এব্যাপারে মামলার প্রক্রিয়া চলছে।সূএ;কুমিল্লারকাগজ

 

 

কুমিল্লানিউজটুয়োন্টিফোরডটকম/মো:রাকিব/১আগস্ট২০১৭    

দারোগা বাড়ি, উত্তর চর্থা
কুমিল্লা-৩৫০০, বাংলাদেশ
ই-মেইল: bdcomillanews24@gmail.com
নিউজ রুম: +8801976530514

প্রধান সম্পাদকঃ হুমায়ূন কবির রনি
নিউজরুম এডিটরঃ তানভীর খন্দকার দীপু
নূরুল আমিন জহির
ই-মেইলঃ editor@comillanews24.com